বাংলাদেশ চায় না তোমাকে

বাংলাদেশ চায় না তোমাকে, তুমি চলে যাও, যাও
কত যে মায়ের খালি বুক ফেলে দীর্ঘশ্বাস_
রক্ত মাখা হাত, তুমি ক্ষমা চাও, ক্ষমা ভিক্ষা চাও।
তোমাকে চায় না এই সোনালী ধানের খেত, কচি দূর্বা, দীর্ঘ শালবন
চায় না ভোরের পাখি, কলা পাতা, গায়ের উঠোন;
কত না পিতার বক্ষে তুমি জ্বেলেছ আগুন
তুমি চলে যাও, যাও;

তোমাকে চায় না এই ফুটপাথ, এভিনিউ ও উদ্যাম ফোয়ারা
তোমাকে চায় না এই জনসভা, মিছিল, মানুষ
তোমাকে চায় না কেউ, রাজপথ, লেন, বস্তি, ব্যস্ত টার্মিনাল
কত বধূর তুমি মুছেছ মেহেদীর রঙ, সিঁথির সিঁদুর
তুমি চলে যাও, যাও;

তোমাকে চায় না এই শিশুপার্ক, রমনার সবুজ উদ্যান
তোমাকে চায় না এই বটমূল, পহেলা বৈশাখ
তোমাকে চায় না এই কৃষ্ণচূড়া, শহীদ মিনার
কত অবুঝ শিশুকে তুমি করেছ অনাথ,
তুমি চলে যাও, যাও;

তোমাকে চায় না এই বইমেলা, কবিতা উৎসব
তোমাকে চায় না কোন দুখিনীর পর্ণকুটির,
তোমাকে চায় না এই বাংলাদেশ, নকশী কাঁথা, পদ্মার ইলিশ
তোমাকে চায় না এই শান্ত দীঘি, রাখালের বাঁশি
কত সুখের সংসার তুমি করেছ বিরান,
তুমি যাও, চলে যাও;

তোমাকে চায় না দেখ নজরুলের বিদ্রোহী কবিতা,
তোমাকে চায় না দেখ পদ্মপাতা, শাপলা দোয়েল
তোমাকে চায় না এই সিংহাসন, সংবিধান, জাতীয় সঙ্গীত
তোমাকে চায় না এই মানচিত্র, জাতীয় পতাকা
তুমি চলে যাও, দেশ ছেড়ে যাও।

মন্তব্য

মন্তব্য সমুহ

সম্পর্কিত পোষ্ট =>  চিঠি দিও
মহাদেব সাহা- এর আরো পোষ্ট দেখুন →
রেটিং করুনঃ
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (No Ratings Yet)
Loading...