স্বপ্নের শিখরে

আমি এই অন্তহীন কুয়াশায় তোমার মুখটি ছাড়া কিছুই দেখি না
এই বৃষ্টির অবেলা, সীমাহীন আঁধারের গ্রীবা, এই ছিন্ন বস্ত্র
এখন কোথায় পাবো হরিৎ বৃক্ষের দ্যাখা মায়াময় শস্যের খামার?
শেষ হয়ে গেছে কবে স্বপ্নের ভিতরে জেগে ওঠা আদর্শ আবাস।

আজ বসে আছি এই ম্লান গোধূলিবেলার শীতে তমসার তীরে
অতল শিশির যেন গ্রাস করে সম্পূর্ণ আমাকে সিংহের মতন
শব্দহীন আমার চিৎকার মিশে যায় মাঘনিশীথের অথই জ্যোৎস্নায়

একেকটি সুখের দিন হলুদ পাতার মতো ঝরে পড়ে তুষার অঞ্চলে
ম্লান রোদে খুঁজেছি তোমার মুখ কতদূরে কতবার ছায়ায় বল্কলে
তুমি আছ এইখানে বুঝি অর্ধঅনাবৃত, আছো বুঝি অর্ধেক আবৃতা
কেবল বুকের মধ্যে বয়ে যায় দিনরাত পাড়ভাঙা অবিশ্রান্ত নদী।

কোটি কোটি ছিন্ন মেঘ জমেছে এখানে এই বিষণ্ন বেলায়
শুধু অন্ধকার ছাড়া কিছুই দেখি না আর খণ্ড খণ্ড স্বপ্নের শিখরে
এই মেঘ, এই স্বপ্ন, ভালোবাসা আমি লিখে দিয়ে যাবো, তোমার উদ্দেশে
আর সব অস্ত যাবে, শুধু এই গান অস্ত যাবে না কখনো।

মন্তব্য

মন্তব্য সমুহ

সম্পর্কিত পোষ্ট =>  ময়ূর দিয়েছে
মহাদেব সাহা- এর আরো পোষ্ট দেখুন →
রেটিং করুনঃ
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (No Ratings Yet)
Loading...