যোজন পথের পথিক…

আজ অনেকদিন…

তোমাকে দেখি না !
তোমার কথা ভাবি না !
তোমাকে ইচ্ছে করে ভুলে থাকি না !
তোমাকে আমার সঙ্গে করে নিয়ে হাঁটি না !
দুইশ ছাপ্পান্ন দিন নাকি তিনশ বিরাশি দিন ভুলে গেছি!

আজ অনেকদিন—
পর; মনে হলো, কারো কাছে একটু সাহায্য চাই…
টাকা পয়সা নয়, মানসিক শান্তি নয়, নয় কনো অবৈধ কামনা !
জমিজমা, সোনার গহনা, শাড়ি কিংবা অন্যকিছু…
যা মানুষের একান্ত শখ কিংবা বিপদের আকাঙ্ক্ষা হয়ে বেঁচে থাকে!

কিন্তু না—
আজ আমার চাইনা এসব …
আজ সারাদিন শুধু একজন মানুষ খুঁজলাম…
যে আমাকে একটু লিখতে সাহায্য করবে !
আমার যে কথাগুলো, আমার শ্বাস কষ্টের কারন হয়ে গেছে!
আমার যে কথাগুলো, আমার হৃদপিন্ডে চাপা ব্যাথার কারন হয়ে আছে!
আমার যে কথাগুলো, আমি বলতে পারার অক্ষমতার কারনে অবিশ্বাসের জন্ম দিচ্ছে!
আমি সেইসব দেয়াল ভেঙ্গে দিতে চাই!

আমি চাই …
কেউ একজন বলুক—
এই নাও তোমার লেখনি;
এই নাও তোমার ধুসর শ্বেতপত্র; প্রিয় কবিতার খাতা !
এই নাও তোমার নীল খাম; ভালোবাসার কষ্টের সুগন্ধি মাখানো!
এই নাও তোমার ধুঁয়া উঠানো চায়ের কাপ…

আর–
আমি আছি তোমার পাঠক…
আমি তোমার সব কথা শুনতে চাই…
আমার আত্মউপলব্ধির পরম মমতায়!

সেইসব শব্দগুচ্ছ…
যা তোমাকে স্তব্ধ করে দিয়েছে!
তোমার রক্তপ্রবাহে যা কমিয়ে দিয়েছে, জীবনের গতি!
ভোরের আযানের সময় যা তোমায় জাগিয়ে তোলে…
অজানা কোনো পৃথিবীর আক্ষেপের আবাহনে!
কষ্ঠহীন প্রাণের প্রখর শুণ্যতায়…অরোধ্য অশ্রুর!
মানুষের ভ্রান্ত সন্দেহে!
কাছের মানুষ হারানোর ভয়ে, বাড়িয়ে দেয়া সংকট এবং সংকোচে!
নিঁখাদ ভালোবাসার মাঝে অবিশ্বাসের বীজ!
মনের সংকীর্ণতার পরিচয়ে!
পুরাতন ভুলের পুনরাবৃতির ভয়ে নতুন সম্ভাবনাকে হীন করে যে প্রেম!
কার্পন্যতা—আত্মবিশ্বাহীনতা!
প্রকাশ করো মানুষ! নিজেকে!আত্মকে!আত্মাকে!

আজ অনেক দিন পর…
মনে হলো—
আমি হয়তঃ প্রায়সই আমাকে আমার সঙ্গে নিয়ে যেতে ভুলে যাই…
আজ দুইশ ছাপ্পান্ন দিন … নাকি তিনশ বিরাশি দিন ভুলে গেছি!
কিন্তু কখনই তোমাকে আমার সঙ্গে নিয়ে যেতে ভুলিনি!
কখনই তোমাকে আমার সঙ্গে নিয়ে যেতে ভুলিনা!

সম্পর্কিত পোষ্ট =>  ব্যথা দাও,বুকে রাখবো

—-৩১ ডিসেম্বর, ২০১০।

মন্তব্য

মন্তব্য সমুহ

ভুকন্যা- এর আরো পোষ্ট দেখুন →
রেটিং করুনঃ
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (No Ratings Yet)
Loading...

৩ টি মন্তব্য

Comments are closed.