একটি চুক্তিপত্রের বিষয়-আশয়

তোমার সঙ্গে আমি একটা চুক্তি করতে চাই, এই নাও টাকা,
মাকড়সার মতো তুমি বিছিয়ে রেখেছো তোমার হাত চারিদিকে,
ছুঁতে পারো আকাশ, আমিও আকাশ ছোঁবো, শীতল মেঘের স্লাইস
দিয়ে ভিজিয়ে নেবো ঠোঁট, তুমি আমাকে নিয়ে যাবে গহীন অরণ্যে,
একমুঠো অন্ধকার আমি তুলে রাখাবো মানিব্যাগে, শরীরের জ্যামিতি
ভাঙার জন্য তুমি আমাকে নিয়ে যাবে ব্রোথেলে, উষ্ণ শরীর থেকে
আমি গড়িয়ে দেবো তরল পারদ, শাড়ির ভাঁজ খোলার জন্য আঙুলের
ম্যাজিক তুমি শিখিয়ে দেবে, আমি মধুর ভাণ্ডার থেকে আকণ্ঠ তুলে নেবো
অমৃতের স্বাদ, দরোজা খোলার মতো ব্লাউজের হুক খুলে দেখবো
ঘরবাড়ি, শয্যার নকিশকাঁথা থেকে গড়িয়ে পড়বে ছোট ছোট ফুল,
আমি তোমার কাছ থেকে শিখে নেবো জলসেচের কার্যক্রম, অনুর্বর
কৃষিজমি কীভাবে ধারণ করে বীজের জীবন আমি জানতে চাই,
তোমার সঙ্গে আমার চুক্তি হবে নক্ষত্রের মেলায়, গোপন চাবির

একগোছা তুলে দেবে আমার হাতে, আমি আকাশের পর আকাশ

খুলে খুলে দেখবো কতোগুলো সিঁড়ি সাজানো আছে প্রস্থানের মহাসড়কে,

আগুনে ঝাঁপ দেবার জন্য দুই হাত কতোদিনে ডানায় রূপান্তরিত হয়।

রাজি হলে এসো আমরা স্বাক্ষর করি চুক্তিপত্রে, এই নাও কড়কড়ে টাকা।

মন্তব্য

মন্তব্য সমুহ

সম্পর্কিত পোষ্ট =>  জ্যামিতির উৎস
শাহবুদ্দীন নাগরী- এর আরো পোষ্ট দেখুন →
রেটিং করুনঃ
1 Star2 Stars3 Stars4 Stars5 Stars (No Ratings Yet)
Loading...